Connect with us

Cric Gossip

Suresh Raina: সৌরভের জায়গায় দ্রাবিড়ের অধিনায়ক হওয়া, জাতীয় দলে র‍্যাগিং,অস্থিরতা নিয়ে বিস্ফোরক রায়না

  • by

Advertisement

ভারতের প্রাক্তন ব্যাটসম্যান সুরেশ রায়না প্রকাশ করেছেন যে ২০০৫ সালে আন্তর্জাতিক অভিষেকের সময় ভারতীয় দলের কয়েকজন সিনিয়র খেলোয়াড়ের মধ্যে সম্পর্ক ঠিক ছিল না। গ্রেগ চ্যাপেল যখন দলের প্রধান কোচ ছিলেন তখন রাহুল দ্রাবিড়ের অধিনায়কত্বে রায়নার অভিষেক হয়েছিল। রাহুল দ্রাবিড় অধিনায়ক হতেই সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কে জাতীয় দল থেকে ছেঁটে ফেলা হয়েছিল।

রায়না জানান যে কীভাবে একবার ড্রেসিংরুমের একজন সিনিয়র খেলোয়াড় তাকে বিদ্রুপ করেছিলেন। যদিও প্রাক্তন ব্যাটসম্যান ক্রিকেটারের নাম উল্লেখ করেননি, তিনি প্রকাশ করেন যে অতিরিক্ত অনুশীলন সেশন দেওয়া নিয়ে তাকে বিদ্রুপ করা হয়েছিল। রায়না তার বইতে প্রকাশ করেছেন “আমার মনে আছে দলের একজন সিনিয়র খেলোয়াড় আমাকে বিদ্রুপ করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন ‘তুমি তো দেখছি দলে একমাত্র ছেলে যে বাড়তি অনুশীলন করছো। তুমি কী মনে করো এ ভাবে অনুশীলন করে দলে জায়গা করে নেবে?’ সুতরাং, আমি দ্রুত তাকে আমার সাথে যোগ দিতে বলেছিলাম কারণ কাউকে আঘাত করার আমার কোনও উদ্দেশ্য ছিল না।”

আমার কাছে, র‍্যাগিং কোনও বড় ব্যাপার ছিল না যেহেতু আমি এটিতে অভ্যস্ত ছিলাম, আমার হোস্টেল জীবন আমাকে অনেক কিছু শিখিয়েছে। তবে আমি বলব না যে ভারতীয় ড্রেসিংরুমে কেউ কখনও ‘র‍্যাগিং’ করেছে” রায়না তার বইয়ে লিখেছেন।

চ্যাপেলকে দলের প্রধান কোচ হিসাবে নিযুক্ত করার কয়েক মাস পরেই গাঙ্গুলিকে অধিনায়কত্ব থেকে অপসারণ করা হয়েছিল এবং ২০০৫ সালে দ্রাবিড়কে সেই জায়গা দেওয়া হগ। রায়না মতে গাঙ্গুলির স্থলাভিষিক্ত হওয়ার পদক্ষেপটি ভারতীয় ড্রেসিংরুমে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন এনেছিল এবং এটি একটি কারণ যা দলে ‘মাঝে মাঝে অস্থিরতা’ সৃষ্টি করছিল। “রাহুল ভাই এবং শচীন পাজির মতো কিছু খেলোয়াড় ছিলেন, যারা ড্রেসিংরুমে শ্রদ্ধেয় ছিলেন। তারা পরিস্থিতি শান্ত রাখার চেষ্টা করতেন। প্রত্যেক জুনিয়র খেলোয়াড়ই সেই পরিস্থিতিতে অস্বাচ্ছন্দ্য বোধ করতো” রায়না লেখেন।

Advertisement

#Trending

More in Cric Gossip