Connect with us

Cricket News

IPL 2021: আইপিলের বাকি ম্যাচে প্যাট কামিন্সের বিকল্প খুঁজে পেল কেকেআর

  • by

Advertisement

কলকাতা নাইট রাইডার্সের (কেকেআর) পেসার প্যাট কামিন্স তার ফ্র্যাঞ্চাইজির সাথে মোটা চুক্তি সত্ত্বেও ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) ২০২১ এর অবশিষ্ট অংশ খেলবেন না। এটি সত্যিই কেকেআরের জন্য একটি বড় ধাক্কা কারণ কামিন্স কোভিড-১৯ সংকটের কারণে মরসুম স্থগিত না হওয়া পর্যন্ত এবারের টুর্নামেন্টে কেকেআরের বোলিং আক্রমণের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। অস্ট্রেলীয় স্পিডস্টার সাত খেলায় নয় উইকেট নেন এবং একটি অর্ধশতরানও করেন। দুর্ভাগ্যবশত, অস্ট্রেলিয়ার ব্যস্ত ক্রিকেট ক্যালেন্ডারের কারণে আইপিএল ২০২১ এর শেষার্ধে কামিন্স উপলব্ধ থাকবেন না। শনিবার, ২৯ শে মে, বিসিসিআই সংযুক্ত আরব আমিরাতে অবশিষ্ট টুর্নামেন্ট পরিচালনার সিদ্ধান্ত নেয়। যদিও তারিখ এবং সময়সূচী এখনও আসেনি, কামিন্স নিজেকে অনুপলব্ধ করে কলকাতা ভিত্তিক ফ্র্যাঞ্চাইজিকে বিপদের মুখে ঠেলে দিয়েছেন। অতএব, শাহরুখ খানের মালিকানাধীন দলটি অবশ্যই একটি শক্তিশালী প্রতিস্থাপন খুঁজছে।

লক্ষণীয়ভাবে, যখন মরসুমটি হঠাৎ স্থগিত হয়ে যায় তখন দলের অবস্থানে সপ্তম স্থানে ছিল। কোনও ঝামেলা ছাড়া প্লে অফে খেলার যোগ্যতা অর্জনের জন্য কলকাতাকে তাদের বাকি সাতটি খেলার মধ্যে ছয়টি জিততে হবে। তাদের চ্যালেঞ্জ এখন আরও কঠিন হয়েছে, কামিন্স আইপিএল ২০২১ থেকে বেরিয়ে এসেছেন। তা সত্ত্বেও, কিছু প্রতিভাবান পেসার রয়েছে যাদের কেকেআর অস্ট্রেলীয় পেসারের পরিবর্ত হিসাবে টার্গেট করতে পারে।

১. বরুণ হারুন

বরুণ অ্যারন দ্রুততম ভারতীয় বোলারদের মধ্যে একজন এবং তার পূর্বে বেশ কিছু অভিজ্ঞতা রয়েছে। তার বাউন্সার এবং ইয়র্কার বল করার ক্ষমতা তাকে একটি শক্তিশালী অস্ত্র করে তোলে। তিনি কামিন্সের একজন প্রতিস্থাপক হতে পারেন। ডানহাতি স্পিডস্টার লাইন-আপে প্রথম পর্যায়ে সুযোগ পাননি, এখন তাকে প্লেয়িং ইলেভেনে অন্তর্ভুক্ত করা যেতে পারে। তাছাড়া, অ্যারনেরও আইপিএলে যথেষ্ট অভিজ্ঞতা রয়েছে। এখন পর্যন্ত, তিনি টি-২০ লিগে ৫০ টি ম্যাচ খেলেছেন, ৪২ উইকেট নিয়েছেন। যদিও তার ইকোনমি রেট ৮.৮৯ এর চেয়ে বেশি, ৩১ বছর বয়সী এখন অনেক বেশি অভিজ্ঞ। গত মৌসুমে,অ্যারন রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে খেলেছিলেন কিন্তু আইপিএল ২০২১ নিলামে নির্বাচিত হননি।

২. শেলডন কটরেল

ক্যারিবিয়ান পেসার শেলডন কটরেল হলেন আরেকজন খেলোয়াড় যাকে কামিন্সের পরিবর্ত হিসাবে টার্গেট করতে পারে। বাঁহাতি এই পেসার ইদানীং ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাদা বলের দলের এক গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ার, এবং তার রেকর্ডও চিত্তাকর্ষক। ক্যারিবিয়ান তারকা একজন বাঁহাতি ফাস্ট বোলার এবং তিনি বোলিং আক্রমণে বৈচিত্র্য আনতে পারেন। ভুলে গেলে চলবে না, আইপিএল ২০২১-এর প্রথমার্ধে ডেথ বোলিং ছিল কেকেআরের জন্য একটি সমস্যা। যাইহোক, কটরেলের অন্তর্ভুক্তি সেই সমস্যাকে সহজ করতে পারে। তিনি গত মৌসুমে পাঞ্জাব কিংসের হয়ে খেলেছেন, ছয়টি উইকেট নিয়েছেন। যদি এই কারণগুলি দেখে কেকেআরের মালিকরা সন্তুষ্ট হন, তবে কটরেলকে সংযুক্ত আরব আমিরাতে বেগুনি এবং সোনালী জার্সিতে দেখা জেতে পারে।

৩.ম্যাট হেনরি

যদি ফ্র্যাঞ্চাইজি মালিকরা কামিন্সের মতো প্রতিস্থাপন খুঁজছেন, তবে ম্যাট হেনরি তাদের মনে আসা প্রথম নামগুলির মধ্যে একটি হতে পারেন। নিউজিল্যান্ডের ফাস্ট বোলার নতুন বলটি উভয় দিকে সুইং করতে পারেন, এবং তাও দ্রুত গতিতে। ডেথ ওভারে ব্যাটসম্যানদের সমস্যায় ফেলার জন্য তার কিছু বৈচিত্র্যও রয়েছে। এই সমস্ত ক্ষমতার কারণে, হেনরি বোলারদের জন্য আইসিসি ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ে চতুর্থ স্থান ধরে রেখেছে। ২৯ বছর বয়সী এই খেলোয়াড় এর আগে আইপিএলেও খেলেছেন। তিনি ২০১৮ সালে পাঞ্জাব কিংসের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন তবে মাত্র দুটি ম্যাচ খেলার পরে বাদ পড়েছিলেন। তা সত্ত্বেও, তিনি তার সাম্প্রতিক কার্যভারে ভাল করেছেন, এবং কে আর কে তাকে বিবেচনা করতে পারে।
হেনরির খেলার আরও একটি দিক যা উল্লেখ করার মতো তা হল তার ব্যাটিং। একাধিক বার বড় রান খেলে তিনি নিউজিল্যান্ডকে উদ্ধার করেছেন। কামিন্সও একই কাজ করেছেন। তাই হেনরিকে অস্ট্রেলীয় পেসারের ভূমিকা গ্রহণ করতে দেখতে পারেন।

Advertisement

#Trending

More in Cricket News