Connect with us

Cricket News

ব্যাট-বলে দুরন্ত পারফরম্যান্স, দিল্লিকে ৫৯ রানে উড়িয়ে দিয়ে প্লে অফের আরো কাছে কেকেআর

Advertisement

রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর বিরুদ্ধে জখন্যভাবে হারের ধাক্কা কাটিয়ে দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে বড় জয়ে ফিরল কলকাতা নাইট রাইডার্স। দিল্লিকে ৫৮ রানে হারিয়ে গুরুত্বপূর্ণ ২ পয়েন্ট সংগ্রহ করল নাইটরা। দলের হয়ে অর্ধশতরান করলেন সুনীল নারিন ও নীতীশ রানা। ৫ উইকেট নেন বরুণ চক্রবর্তী।

এদিন টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়াস আইয়ার। দিল্লির বোলাররা শুরুটা বেশ ভালোই করে ৭.২ ওভারে মাত্র ৪২ রানে (শুভমান গিল, রাহুল ত্রিপাঠী ও দীনেশ কার্তিক) এই ৩ উইকেট হারিয়ে নাইটরা যখন বেশ চাপে তখন ইনিংসের হাল ধরেন সুনীল নারিন ও এই ম্যাচে ওপেন করতে নামা নীতীশ রানা। এঁরা দুজনে মিলে ৫৬ বল খেলে  ১১৫  রানের পার্টনারশিপ গড়ার পর ওভারবাউন্ডারি মারতে গিয়ে আউট হন সুনীল নারিন। আউট হওয়ার আগে ৬টি বাউন্ডারি ও ৪টি ওভারবাউন্ডারির সাহায্যে ৩২ বলে ৬৪ রান করেন।

নারিন আউট হওয়ার নীতিশ রানা ও অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যান মিলে দলকে ১৯৪ রানে ফাইটিং স্কোরে পৌঁছে দেন। ১৩টি বাউন্ডারি ও ১টি ওভারবাউন্ডারির সাহায্যে ৫৩ বলে ৮১ রান করেন রানা। মর্গ্যানের সংগ্রহ ৯ বলে ১৭ রান। দিল্লি ক্যাপিটালসের মধ্যে সবথেকে ভাল বল করেন এনরিচ নর্টজে ও কাগিসো রাবাদা। ৪ ওভারে ২৭ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন নর্টজে এবং ৪ ওভারে ৩৩ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন রাবাদা। স্টোইনিস ২টি উইকেট পেলেও ৪ ওভারে ৪১ রান দেন।

রান তাড়া করতে নেমে প্রথম বলেই আউট হন অজিঙ্কে রাহানে। ফর্মে থাকা শিখর ধাওয়ান মাত্র ৬ রান করে প্যাভিলিয়নে ফেরেন। ২ উইকেট পড়ার পর শ্রেয়াস আইয়ার ও ঋষভ পন্থ মিলে পার্টনারশিপ গড়ে মরিয়া চেষ্টা করলেও রানের চাপে বেশিক্ষণ স্থায়ী হননি। ৩৩ বলে ২৭ করেন পন্থ। পন্থের আউটের পর ১০ রান করে আউট হন শিমরন হেটমায়ার।

হেটমায়ারের আউটের পরের বলেই ৪৭ রানে আউট হন শ্রেয়াস। এরপর আর লড়াই করতে পারেনি দিল্লি। শেষপর্যন্ত ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৫ রান সংগ্রহ করল দিল্লি। কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে সেরা বোলিং করেন স্পিনার বরুণ চক্রবর্তী।

৪ ওভারে মাত্র ২০ রান দিয়ে ৫ উইকেট নেন তিনি। ৪ ওভারে ১৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন প্যাট কামিন্স।

 

Advertisement

#Trending

More in Cricket News